মডেল কাজী নওশাবা আহমেদ র‍্যাব এর হাতে আটক

রুদ্র নামে এক স্কুল ছাত্র মোবাইলফোনের মাধ্যমে অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদকে জানায় জিগাতলায় নিহতের খবর। এরপরই উত্তরার একটি শ্যুটিংস্পট থেকে ফেসবুক লাইভে যান অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ।  মোবাইলফোনে শোনা কথাগুলোই ফেসবুক লাইভে বলার পর সবাইকে রাস্তায় নেমে আসারও আহ্বান জানান অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ। মিথ্যা তথ্য ও গুজব ছড়ানোর বিষয়টি র‌্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকারও করেছেন কাজী নওশাবা আহমেদ।ঘটনাস্থলে উপস্থিত না থাকলেও উত্তরার একটি শুটিং স্পট থেকে রুদ্র নামের এক ছেলের প্ররোচনায় ফেসবুক লাইভে গুজব ছড়ানোর কথা স্বীকার করেছেন র‌্যাবের হাতে আটক অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ।

রাতে র‌্যাব সদর দফতরে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য তুলে ধরেন র‌্যাব সদর দফতরের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইং পরিচালক মুফতি মাহমুদ খান।তিনি বলেন, ‌জিগাতলার ঘটনা নিয়ে অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ ফেসবুক লাইভে গেলেও ঘটনাস্থলে তিনি ছিলেন না। অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ ছিলেন উত্তরার একটি শুটিং স্পটে।
সেখান থেকেই মোবাইলফোনে আসা খবরে অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ ফেসবুক লাইভে যান। কাজী নওশাবা আহমেদ ফোনে যা শুনেছেন তাই ফেসবুক লাইভে ছড়িয়ে দিয়েছেন। তার সেই গুজব মুহূর্তের মধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে যায়।
যে কারণে দ্রুত গুজব আরও ছড়িয়ে পড়ে।জিজ্ঞাসাবাদে অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ র‌্যাবকে জানিয়েছে, রুদ্র নামে একটা ছেলের সাথে গত ৩ আগস্ট তার পরিচয় হয় শাহবাগে। তারপর থেকে রুদ্রের সাথে তার যোগাযোগ হয় এবং চলমান আন্দোলন সম্পর্কে আপডেট জানতে পারে। সেই সূত্রে রুদ্রের দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে শনিবার অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ ফেসবুক লাইভে যায়। প্রাপ্ত তথ্যের সত্যতা কোনো রকম যাচাই-বাছাই ছাড়াই বলাটা শুধু গুজব নয়, অপরাধ। তথ্যদাতা সেই রুদ্র একটি স্কুলে পড়ে বলে জানিয়েছেন নওশাবা।

র‌্যাবের গণমাধ্যম শাখার এ প্রধান কর্তা আরও বলেন, আন্দোলনকে কেন্দ্র করে পুরাতন ঘটনার ফুটেজ নতুন করে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল করারও পায়তারা চলছে।এসব ব্যাপারে আমাদের কাছে তথ্য আছে। গুজব ছড়ানোর ঘটনায় আরও যারা জড়িত আছে তাদের সবাইকে খুঁজে বের করে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে। কাউকে ছাড় দেয়া হবে না।শনিবার বিকেলে ফেসবুক লাইভে এসে জিগাতলায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের ওপর হামলায় দুই ছাত্রের মৃত্যু এবং একজনের চোখ তুলে ফেলার খবর জানান নওশাবা ।লাইভ ভিডিওর শুরুতেই অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদ বলেন, আমি কাজী নওশাবা আহমেদ বলছি, আপনাদেকে জানাতে চাই, একটু আগে জিগাতলায় আমাদের ছোট ভাইদের একজনের চোখ তুলে ফেলা হয়েছে, দুজনকে মেরে ফেলা হয়েছে।

সকলকে এক হওয়ার অনুরোধ জানিয়ে এই অভিনেত্রী বলেন, আপনারা সবাই এক সাথে হোন। ওদের প্রটেকশন দিন প্লিজ। বাচ্চাগুলো আনসেইফ অবস্থায় আছে। আপনারা রাস্তায় নামেন প্লিজ।আন্দোলনকারী ছাত্রদের রক্ষা করতে সকলকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়ে নওশাবা বলেন, যদি সরকার প্রটেকশন দিতে না পারে, তবে মা-বাবা হয়ে, ভাই-বোন হয়ে ছেলে মেয়ে গুলোকে প্রটেকশন দিন, এটা আমার রিকোয়েস্ট। ফেসবুক লাইভে নওশাবা আরো বলেন, যে পুলিশরা আছেন আপনারা অবশ্যই নিজেদের বাচ্চাদের প্রোটেকশন দেন আপনারা প্লিজ কিছু একটা করেন আপনারা সবাই একসাথে হন আমি এ দেশের মানুষ, এ দেশের নাগরিক হিসেবে আপনাদের কাছে রিকোয়েস্ট করছি।

Facebook Comments
(Visited 39 times, 2 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*